প্রশ্ন : আসসালামু আলাইকুম ওয়া রহমাতুল্লাহ।আমি বিবাহ করেছি দুই বছর। সাংসারিক জীবনে আমি আমার স্ত্রীকে নিয়ে খুব সুখি। কিন্তু মাঝে মাঝে কিছু বিষয় নিয়ে আমাদের মধ্যে ঝগড়া হয়। রাগারাগির কোন এক পর্যায়ে আমি প্রায়ই বলি তোমাকে স্বাধীন করে দিব বা স্বাধীনতা দিলাম এ জাতিয় কথা। তোমার মন যা চায় তুমি তাই করতে পার। হুজুরের কাছে জানতে চাই যে, এ ধরনের কথা বললে আমাদের বৈবাহিক সম্পর্কের কোন ক্ষতি হবে কি?দয়া করে জানালে খুবই উপকৃত হব।

উত্তর :

তানকীহ(প্রশ্ন স্পষ্টকরন): ওয়া আলাইকুমুস সালাম ওয়া রহমাতুল্লাহ

আপনি এ কথাগুলো কি নিয়তে বলেছিলেন? এটা জানার পরে আপনার প্রশ্নের উত্তর দেওয়া হবে ইংশাআল্লাহ্‌।

তানকীহ এর উত্তরঃ যখন প্রচন্ড রেগে যাই তখন ওকে বলে এভাবে আর হয় না। আমাদের মনে হয় আলাদা হওয়া উচিৎ। তখন আমার মনে হয় যে আমার স্ত্রী যদি রাজি থাকে তাহলে আমরা আলাদা হয়ে যাব। আমার মনে হয় আমি বলেছি আমি তোমাকে ডিভোর্স দেব। এমতাবস্থায় আমাদের আবারো বিবাহ করতে হবে কী বা মনের সন্ধেহ দূর করার জন্য আমরা যদি আবার বিবাহ করি তাহলে কোন সমস্যা আছে কী? বিস্তারিত জানালে কৃতজ্ঞ থাকব।

উত্তরঃ আপনি যদি “তোমাকে স্বাধীন করে দিব বা স্বাধীনতা দিলাম” বা “তোমার মন যা চায় তুমি তাই করতে পার” না বলে থাকেন এবং  শুধু “আমি তোমাকে ডিভোর্স দেব” এতটুকু বলে থাকেন তবে এতে কোন সমস্যা হয়নি।অন্য কোন বাক্য বলে থাকলে পুনরায় তা লিখে প্রশ্ন করুন।– ফাতাওয়া হিন্দিয়া ১/৩৮৪; রদ্দুল মুহতার ৩/৩১৯; আল বাহরুর রায়েক ৩/৫৪৫।

উল্লেখ্য যে, স্ত্রীর সাথে রাগারাগির সময় শব্দ চয়নে খুবই সতর্কতা কাম্য।অন্যথায় একটি কথাই সারাজীবনের ভোগান্তির কারন হয়।এ ব্যাপারে বিস্তারিত জানতে চাইলে এই লিঙ্ক ভিজিট করতে পারেন।

http://muftihusain.com/article/%E0%A6%86%E0%A6%AE%E0%A6%BE%E0%A6%A6%E0%A7%87%E0%A6%B0-%E0%A6%AA%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A6%BF%E0%A7%9F%E0%A6%A4%E0%A6%AE%E0%A6%BE-%E0%A6%B8%E0%A7%8D%E0%A6%A4%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A7%80%E0%A6%97%E0%A6%A8/

667,818 total views, 1,127 views today