প্রশ্ন : আসসালামু আলাইকুম, (প্রশ্ন-১) কাপড়ে কড়কড়ে ভাব আনার জন্য ভাতের মাড় ব্যবহার করলে কি কোনো সমস্যা আছে? (প্রশ্ন -২) একাকী ফরয/ওয়াজিব/সুন্নত/নফল নামায পড়বার সময় সিজদায় সুবহানা রব্বিয়াল আ’লা সহ আরো কিছু দুআ বাংলায় বা আরবীতে পড়া যাবে কিনা? (প্রশ্ন-৩) ফরজ গোসল করবার পূর্বে যদি প্রথমে লজ্জাস্থান ভালভাবে ধুয়ে নেয়া হয়, আর শরীরের অন্যত্র কোথাও নাপাকী লেগে না থাকে, তবে বালতির পানি দিয়ে গোসল করবার সময় যদি অল্প বা বেশী পরিমান পানি বালতিতে পড়ে তবে বালতির পানি নাপাক হবে কিনা? (প্রশ্ন-৪) গোসল ফরজ অবস্থায় পরিধেয় জামা যদি ঘামে ভিজে থাকে তবে কি তাও নাপাক হবে? (প্রশ্ন-৫) যৌন মিলনের সময় বা কোন মেডিকেল টেস্ট এর কারনে স্ত্রীর যোনিতে আঙ্গুল প্রবেশ করালে কি স্ত্রীর উপর গোসল ফরজ হবে?

উত্তর :

ওয়া আলাইকুমুস সালাম

১।না, কোন সমস্যা নেই।

২।আপনি চাইলে শুধুমাত্র নফল নামাযে সিজদায় দুআ করতে পারেন। তবে দুআ আরবী ভাষায় কুরআন বা হাদীসে বর্ণিত কোন দুআ হতে হবে। অন্য ভাষায় করা জায়েয নয়। -রদ্দুল মুহতার ১/৫২১;হাশিয়ায়ে তাহতাবী,পৃষ্ঠা ২৭২;আল বাহরুর রায়েক ১/৫৭৮,৫৭৯।

৩। যদি বালতিতে ছিটে পড়া ব্যাবহারিত পানি অব্যাবহারিত পানির বরাবর বা বেশি হয় তবে তা দ্বারা উযূ গোসল জায়েয নেই। আর ব্যাবহারিত পানি কম হলে তা দ্বারা উযূ গোসল জায়েয আছে।–রদ্দুল মুহতার ১/১৯৮,২০১; আল-বাহরুর রায়েক ১/১২৯; মাজমাউল আনহুর ১/৩০।

৪।ঘামের সাথে প্রকাশ্য নাপাকী লেগে না থাকলে তা পাক।–সহীহ মুসলিম, হাদীস নং ৮৫০; রদ্দুল মুহতার ১/২২২,২২৮; ফাতাওয়া হিন্দিয়া ১/২৩।

৫। না, এতে গোসল ফরজ হবে না।–রদ্দুল মুহতার ১/১৬৬; গুনিয়্যাতুল মুসতামলী পৃষ্ঠা ৪৪।

667,593 total views, 902 views today