প্রশ্ন : আমি আমার স্ত্রীকে বিয়ের সময় সাত ভরি স্বর্ণ উপহার দিই। সাথে স্ত্রীর মা,ভাই,বোন,খালা আরো কিছু স্বর্ণ উপহার দেয়। সব মিলিয়ে তের ভরির মতো। আমার স্ত্রী সরকারী চাকরী করে। স্কুলে। আমি গত চার/পাঁচ বছর যাবৎ নিয়মিত যাকাত আদায় করছি বা চেষ্টা করছি। আমি একজন মুফতীর সাথে সাক্ষাতে আলোচনা করে জানতে পারলাম এই যাকাত ফরজ হলো আমার স্ত্রীর উপর। আমাকে দিয়ে এক প্রকার জোর করে যাকাত আদায় করতে বলে। আমিও সংসারে ঝামেলা হবে এই চিন্তা করি দিয়ে দিই। আমি আমার স্ত্রী কে বললাম এই যাকাত তোমাকে দিতে হবে। না হলে গুনাহ হবে। ও কোন ভাবেই রাজি হয়না। ওর আম্মার যাকাত ওর বাবা দিত। ওর মা-ও চাকরী করতেন। প্রশ্ন: হলো তের ভরি স্বর্ণের যাকাত কি আমার উপর ফরজ। আমি যদি স্ত্রী জোর করার পরেও আদায় না করি আমার কি গুনাহ হবে। আমি এই পুরো বিষয়টা অমার স্ত্রীকে কিভাবে বুঝাই?

উত্তর :

না, উক্ত স্বর্ণের যাকাত দেওয়া আপনার স্ত্রীর উপর ফরজ। আপনি আদায় না করলে আপনার কোন গুনাহ হবে না। উলামাদের রেফারেন্সে আপনি তাকে বুঝিয়ে বলবেন এটা আদায় করা তার দায়িত্ব। তবে সামর্থ্য থাকলে আপনি তা আদায় করে দিলে আপনি ছাওয়াব পাবেন।–হিদায়া ১/১৯৫; ফাতওয়ায়ে দারুল উলূম দেওবন্দ ৬/৫০।

668,615 total views, 1,924 views today