প্রশ্ন : আসসালামু আলাইকুম। হুজুর আমি জানি যে নাড়ি ভুড়ি সহ মুরগী বা হাঁস গরম পানিতে চুবিয়ে দিলে তা খাওয়া নিষেধ। তাই আমি মুরগী কেনার পর তা ড্রেসিং করার পূর্বে নাড়ি ভুড়ি ফেলে এর পর গরম পানিতে চুবিয়ে ড্রেসিং করাই। একজনের কাছে শুনলাম এটাও নাকি সহীহ না। কারণ তাদের পানিতে আরো অনেক মুরগী চুবায় যাতে করে পানি রক্তে লাল হয়ে থাকে। তার কথা কি সঠিক। যদি সঠিক হয় তাহলে কিভাবে ড্রেসিং করাবো কারণ তারা তো আমার একটি মুরগীর জন্য আলাদা করে পরিষ্কার পানি দিয়ে ড্রেসিং করবে না। আর নাড়ি ভুড়ি সহ কতক্ষণ গরম পানিতে চুবিয়ে রাখলে কোন সমস্যা হয় না।

উত্তর :

ড্রেসিং করার সময় যদি ফুটন্ত নাপাক পানিতে মুরগী এতটুকু সময় রেখে দেয় যে, নাপাকী মুরগীর গোস্তের ভিতরে ঢুকে যায় তবে তা খাওয়া হারাম। আর যদি সামান্য সময় রাখে (যাতে নাপাকী মুরগীর গোস্তের ভিতরে ঢুকে না) বা পানি ফুটন্ত না হয় তবে কোন অসুবিধা নেই। আমি যদ্দুর দেখেছি আমাদের দেশে ড্রেসিং এর সময় যতটুকু সময় পানিতে রাখে এতে নাপাকী মুরগীর গোস্তের ভিতরে ঢুকে না বরং চামড়ার বাইরের দিকে কিছুটা উষ্ণতা পৌঁছে মাত্র।–রদ্দুল মুহতার ১/৩৩৪; হালবিয়ে কাবীর পৃষ্ঠা ২০৭; ফাতহুল কদীর ১/২১০।

 831,713 total views,  77 views today