প্রশ্ন : আসসালামু আলাইকুম। হযরত আমি অতি দুঃখের সাথে জানাচ্ছি যে, আমাদের বাড়ির পাশের বেশ কয়েকজন মহিলা টাকার বিনিময়ে খ্রিষ্টান হয়েছে। তাদেরকে প্রতি সাপ্তাহে সাপ্তাহে ৫ কেজি চাল, বড় বড় বিশটি রুটি যা তারা ইচ্ছে করলে বিক্রয় করতে পারে আরো হয়ত কিছু দেয়ার দ্বারা খ্রিষ্টান বানাচ্ছে। এছাড়া যদি কেউ তাদের অনুসরণ করে এবং তাদের রুটিন অনুযায়ি আমল ও কাজ করে তবে তাদেরকে ১ বৎসর পর ১ লক্ষ করে টাকাও দেয়া হবে বলে জানিয়েছে। গত কাল আমার বাড়ির পিছনের ঘরের বৃদ্ধ মহিলা যেতে চাইলে আমার স্ত্রী তাকে বাধা দেয় এবং তার ছেলেকে বললে তার ছেলে তাকে সাময়িক ভাবে খ্রিষ্টান হওয়া থেকে ফেরায় এবং তাকে খ্রিষ্টানদের স্কুলে যেতে দেয়নি। কিন্তু ভবিষ্যতে সে লুকিয়ে হয়ে যায় কি না কে যানে। আমদের এই মসিবতে কি কি করণিয় জানালে কৃতজ্ঞ হবো। এ কেমন ফেতনা শুরু হলো। আজ সকালে আম্মার কাছে শুনলাম আরেক জন বৃদ্ধ মহিলা বলছে, যাকে আমি ভালো ভাবে চিনি ও জানি সেও নাকি খ্রিষ্টান হবে। পাশের বাড়ির মহিলা বাধা দিলে সে জানায় তার ছেলে নেই, স্বামী নেই তার ভরণ পোষণ কে দিবে ? যে মহিলা বাধা দেয় তাকে সে বলে তুমি কি আমারে সাপ্তাহে সাপ্তাহে চাল, রুটি, টাকা দিবা যদি দাও তবে খ্রিষ্টান হবো না নতুবা খ্রিষ্টান হবো। কি মসিবত বলুন। আমারা কি করতে পারি? আমি বিষয়টি ইমেইলে না দিয়ে প্রশ্ন উত্তরে দিলাম যাতে অন্যরাও বিষয়টি সম্পর্কে জানতে পারে। জাযাকাল্লাহু খায়রান।

উত্তর :

ওয়া আলাইকুমুস সালাম
নিম্নোক্ত লিঙ্কের প্রশ্নোত্তরে আপনি আপনার উত্তরটি পেয়ে যাবেন।
http://muftihusain.com/ask-me-details/?poId=1263

 829,728 total views,  95 views today