প্রশ্ন : আসসালামু আলাইকুম হযরত আমার একটি কম্পিউটার ট্রেনিং সেন্টার ছিল। যা গত ৩ বছর আগে বন্ধ হয়ে গিয়েছে। বর্তমানে আমি চাকুরি করি। আমার প্রশ্ন আমার ট্রেনিং সেন্টার যখন চালু ছিলো তখন অনেক শিক্ষার্থী ভর্তি হবার পর কিছু দিন ক্লাস করে আর আসতো না। স্বাভাবিক নিয়মে তারা ভর্তির সময় যে ফিস জমা দিতো তা আর নিতে আসতো না। সাধারণত জমা দেয়া ফিস নিতে আসাকে অনেকে লজ্জার মনে করে। যা হোক এখন আমার প্রশ্ন তাদের জমা দেয়া টাকা ফিরত না নেয়ার কারণে আমার উপর কোন দায় আছে কি? এমন ও হয়েছে কোন ছাত্র ১০০০/- টাকা দিয়ে ভর্তি হয়ে ২-৩ বা ৫-৬ টা ক্লাস করেই চলে গেছে আর আসেনি। উল্লেখ্য যে তাদের চলে যাওয়া তাদের সমস্যার কারণেই হয়েছে আমার এতে কোন অযোগ্যতা ছিলো না। অর্থাৎ তারা যদি ঠিক মত আসতো তবে আমি তাদের ঠিক মত শিখিয়ে দিতাম। হুজুর বহুদিন পর হঠাৎ বিষয়টা নিয়ে মনে সন্দেহ হচ্ছে তাই প্রশ্ন করলাম।

উত্তর :

ওয়া আলাইকুমুস সালাম
না, আপনার উপর কোন দায় নেই। আসলে এধরনের ট্রেনিংগুলো একটি প্যাকেজ আকারে করানো হয়। আর যারা কয়েকটি ক্লাস করে আর আসেন না তারাও টাকা ফেরত নিতে আসেন না। প্রচলনেও এ টাকা ফেরত নেওয়ার রেওয়াজ নেই। অর্থাৎ গ্রাহকের সাথে এমন একটি চুক্তি হয় যে, এই কোর্সে যে নিজেকে অন্তর্ভুক্তি করতে চায় সে নির্দিষ্ট মেয়াদের জন্য নির্দিষ্ট পরিমাণ টাকা দিয়ে ভর্তি হবে। পরবর্তীতে সে নিয়মিত না হলে কেমন যেন সে তার হক ছেড়ে চলে গেল। –ইমদাদুল আহকাম ৩/৫৮৩

 829,456 total views,  979 views today