প্রশ্ন : আসসালামু আলাইকুম। হুজুর আমার প্রশ্ন আমি ছোট কাল থেকেই রোযা রাখছি বলে মনে হয়। তবে মাঝে মাঝে সন্দেহ হয় যে, আমি কি ঠিক ১৪ বছর থেকেই রোযা রেখেছি? নাকি ১৪ বছরের দুই এক বছর পর থেকে রেখেছি। আমার সঠিক মনে নেই। অনেক চেষ্টা করেছি মনে করতে পারি নাই এবং আব্বা আম্মাকেও জিজ্ঞাসা করেছি তারা বলতে পারে না। তবে নামায ১২ বছরের মধ্যেই শুরু করেছি বলে মনে আছে। কারণ ২০০০ সালে সবাই বলে ছিলো পৃথিবী ধ্বংস হবে তাই তখন থেকে নামায শুরু করি। তখন আমার বয়স ১২ বছর। তবুও মাঝে মাঝে সন্দেহ হয় নামাযও কি দুই এক বছর বাদ গেল কিনা? আমার প্রশ্ন ১। এখন কি করবো? গতদিন একটি রোযা রেখেছিলাম। কিন্তু মনে হলো আপনাকে জিজ্ঞাসা করে নিই। রোযা এই নিয়তে রেখেছিলাম যে, জীবনে যতগুলো ফরজ রোযা বাকী আছে তার প্রথমটা আদায় করছি। আমার প্রশ্ন ২। এভাবে নিয়ত ঠিক আছে কি?

উত্তর :

ওয়া আলাইকুমুস সালাম
১। ছেলেরা বার বছর এবং মেয়েরা নয় বছরের পূর্বে বালেগ হয় না। কাজেই আপনি পুরুষ হয়ে থাকলে এবং নিশ্চিতভাবে বার বছরের পূর্বে নামায শুরু করে থাকলে আপনার জিম্মায় কোন ক্বাযা নামায নেই। আর রোযার ক্ষেত্রে যদি বালেগ হওয়ার পর ছেড়ে দেওয়া রোযাগুলো সঠিকভাবে মনে করতে না পারেন তবে প্রবল ধারণার ভিত্তিতে নির্ধারণ করবেন আপনার কতগুলো রোযা ছুটে গিয়েছে। সে পরিমাণ রোযা ক্বাযা করবেন পাশাপাশি ইস্তেগফার করবেন। অনুরূপভাবে নামায বার বছরের পর শুরু করে থাকলে এবং রোযার মত (বালেগ হওয়ার বয়স এবং নামায শুরু করা নিয়ে) সন্দেহ হলে এক্ষেত্রেও একই হুকুম।–হাশিয়ায়ে তাহতাবী, পৃষ্ঠা ৪৪৭

২। হ্যাঁ, ঠিক আছে।–আল মুহীতুল বুরহানী ২/৯৯; ফাতাওয়া তাতারখানিয়া ২/৭৬৬

 833,688 total views,  903 views today