প্রশ্ন : আসসালামু আলাইকুম। হযরত আমি কর্মজীবী। ফজরের পর অনেক সময় কাজ থাকে। ফলে ফজরের পর বসে তেলাওয়াত করতে অনেক সময় তাড়াহুড়া করতে হয়। আমি ফজরে মসজিদে গেলে মাঝে মাঝে জামাতের অনেক সময় বাকী থাকাতে অবসর বসে থাকি। যদি এই সময় আমি সুরা ইয়াছীন ও আর রাহমান তেলাওয়াত করে ফেলি তবে তার দ্বারা কি ফরজ বাদ যে তেলাওয়াত করার কথা ও ফজীলত আছে তা পাবো?

উত্তর :

ওয়া আলাইকুমুস সালাম
আসলে নির্দিষ্টভাবে ফজরের ফরজ নামাযের পরেই সূরা ইয়াছীন তিলাওয়াতের বিশেষ কোন ফজীলাতের কথা হাদীস শরীফে পাওয়া যায় না। যারা ফজরের ফরজ নামাযের পরে সূরা ইয়াছীন তিলাওয়াতের কথা বলেছে তারা মূলত দৈনন্দিন আমলগুলোকে সহজে বিন্যাসের জন্য হয়তোবা এমনটি বলেছেন। হাদীস শরীফে সকালে, রাতে, দিনে ইত্যাদি সময় সূরা ইয়াছীন তিলাওয়াতের কথা এসেছে। তাই আপনি উক্ত সময় তিলাওয়াত করলেও নির্ধারিত ফজীলাত পেয়ে যাবেন ইংশাআল্লাহ।– মুসনাদে দারেমী, হাদীস নং ৩৪১৯; সহীহ ইবনে হিব্বান, হাদীস নং ২৫৭৪; মিরকাতুল মাফাতীহ ৮/২৬৩ (শামেলা)

 833,678 total views,  893 views today