প্রশ্ন : মানসুর হাল্লাজ কি আল্লাহর ওলী ছিলেন? না গোমরাহ? তার সমকালীন ওলামা মাশায়েখ তার ব্যাপারে কুফরীর ফাতাওয়া দিয়েছেন বলে জানি। কিন্তু আমাদের এই সময়ের বা কিছুদিন পূর্বের ওলামা হযরত তাকে বড় ওলি হিসেবে বর্ণনা করছেন। এক্ষত্রে সঠিক অবস্থান কোনটি? জানিয়ে বাধিত করবেন।

উত্তর :

প্রিয় দ্বীনী ভাই, আল্লাহর বান্দা তো চলে গিয়েছেন। যদি তিনি তার মালিককে রাজী করতে পারেন তবে তো তিনি ভালোই আছেন। আর না করতে পারলে তার মালিক যে আচরণ করার তাই করছেন। তিনি ভালো নাকি মন্দ ছিলেন এর সাথে আমাদের ঈমান বা আমলের কোন সম্পর্ক নেই। এ ব্যাপারে আপনি কখনো জিজ্ঞাসিত হবেন না। কাজেই এর পিছনে সময় দেওয়ার কি প্রয়োজন?
তবে এতটুকু জেনে রাখুন, তার ব্যাপারে ভারসাম্যপূর্ণ অবস্থান হল, তিনি কাফের ছিলেন না। তার যে বক্তব্যের (আনাল হক) কারনে তাকে কুফরীর ফাতওয়া দেওয়া হয়েছে সেটা তিনি স্বাভাবিক অবস্থায় বলেননি। যেমন ঘুমের মধ্যে অচেতন অবস্থার কোন বক্তব্যের কারনে কাউকে কাফের বলা যায় না। কাউকে কাফের বা মুরতাদ বলতে সুস্পষ্ট দলীল প্রয়োজন। আর সেটা পাওয়া যায় না। তার হত্যার বিষয়টি ছিল রাজনৈতিক। যাই হোক, তার কাফের না হওয়ার দলীলগুলো আমাদের নিকট শক্তিশালী মনে হয়েছে। আপনি থানবী (রহঃ) এর “বাওয়াদিরুন নাওয়াদির” নামক কিতাবটি (পৃষ্ঠা ৩৯৭, ৩৯৮) দেখতে পারেন।

 821,059 total views,  711 views today