প্রশ্ন : ১৷ লন্ডনে আমার এক আত্মীয় আছেন। উনার হালাল Takeaway ব্যাবসা আছে। আর এখন work permit ভিসা দিচ্ছে লন্ডনে। এখন উনি উনার takeaway এর জন্য আমাকে নিতে চাচ্ছেন। কিন্তু প্রশ্ন হলো আমি ওখানে গেলে উনার বাসায় থাকতে হবে। কিন্তু উনি বাসাটি ব্যাংক থেকে ঋণ নিয়ে কিনেছেন আর বাসা ভাড়া দিয়ে আয়ও করছেন। (আমি জানি না উনি এখনো ঋণ দিচ্ছেন কি না)। উনার বাসায় থাকা ও খাওয়া কি যাবে? আর এই বাসায় আমি নামায বা অন্যান্য ইবাদত করলে কি সহীহ হবে? (উনার ইনকাম হলো এই হালাল takeaway এর ব্যবসা আর বাসা বাড়া বাবদ প্রাপ্ত আয়) ২। যদি আমি work permit ভিসায় লন্ডনে যাই আর মেয়াদ শেষ হবার পর আমি ওখানে থেকে হালাল ভাবে উপার্জন করি তা কি হালাল হবে? (ভিসার একটি নির্দিষ্ট মেয়াদ থাকে)

উত্তর :

১। হ্যাঁ, তার বাসায় থাকা ও খাওয়া যাবে। আর উক্ত বাসায় ইবাদত করলে তা সহীহ হবে। তবে তার সূদ দেওয়ার জঘন্যতম গোনাহ হবে। নিম্নোক্ত লিঙ্কে আপনি এ ব্যাপারে আরো বিস্তারিত জানতে পারবেন-
http://muftihusain.com/ask-me-details/?poId=2505
২। হ্যাঁ, উপার্জন তো হালাল হবে। তবে এভাবে অবৈধভাবে অবস্থান করা এক প্রকার ধোঁকা ও প্রতারণার শামিল। যা মুমিনের শানের খেলাফ। আর অবৈধভাবে থাকার কারনে অনেকক্ষেত্রেই অপদস্থ হতে হয়। হাদীস শরীফে নিজেকে অপদস্থ করতে নিষেধ করা হয়েছে। কাজেই ভিসা বা ওয়ার্ক পারমিট ব্যতীত অবস্থান করা কোন মুমিনের জন্য উচিত নয়।-সুনানে তিরমিজী, হাদীস নং ২২৫৪; মুসনাদে আহমাদ, হাদীস নং ১২৫৬৭

 831,576 total views,  795 views today