প্রশ্ন : এক ভাই বললো সে যত মেয়েকে বিয়ে করবে বিয়ে করার সাথে সাথে তালাক। সে এখন বিয়ে করতে চাচ্ছে তার জন্য বিয়ে করার কোনো সূরত আছে? রব্বে কারীম আপনাকে জাযায়ে খায়ের দান করুক।

উত্তর :

নিম্নোক্ত লিঙ্কে আপনি আপনার উত্তর পেয়ে যাবেন ইংশাআল্লাহ-
http://muftihusain.com/ask-me-details/?poId=1410
এছাড়াও আপনার সুবিধার্থে আরেকটি প্রশ্নোত্তর নিম্নে দেওয়া হল-
(আসসালামু আলাইকুম,
প্রিয় মুফতী সাহেব, তালাক/বিবাহ সম্পর্কিত একটি মাসআলা জানতে চাই।
প্রশ্ন: একজন বলেছিল যে “আমি যেই মেয়েকেই বিবাহ করব সেই তালাক” এখন সে বিবাহকরেছে। এ অবস্থায় কি বিবাহ সহীহ হয়েছে? যদি সহীহ না হয়ে থাকে তাহলে কি করলে সহীহ হবে?
হযরত দয়া করে একটু তাড়াতাড়ি জানাবেন। খুবই মুছীবতের মধ্যে আছি।

উত্তরঃ ওয়া আলাইকুমুস সালাম
উক্ত ব্যক্তি বিবাহ করার সাথে সাথেই তার স্ত্রীর উপর তালাক পতিত হয়েছে। আর ভবিষ্যতেও সে যখনই কোন বিবাহ করবে তখনই তার স্ত্রী তালাক হবে। এ থেকে বাঁচার উপায় হল, তৃতীয় কোন ব্যক্তি তাকে কোন মহিলার সাথে বিবাহ করিয়ে দিবে। অর্থাৎ তৃতীয় ব্যক্তি তার পক্ষ থেকে কবূল করবে। এরপর ঐ তৃতীয় ব্যক্তি তার নিকট এসে বলবে, আমি তোমাকে অমুকের সাথে বিবাহ করিয়ে দিয়েছি তুমি মোহর বাবদ কিছু দাও। সে মৌখিকভাবে কিছু না বলে তাকে মোহর বাবদ কিছু দিয়ে দিবে। আর উক্ত ব্যক্তি তার স্ত্রীকে তা দিয়ে বলবে তোমার স্বামী এটা তোমাকে মোহর বাবদ দিয়েছে। এর দ্বারা কার্যত তার বিবাহ হয়ে যাবে এবং কসমের কারনে তার স্ত্রীর উপর কোন তালাক পতিত হবে না।–রদ্দুল মুহতার ৩/৮৪৬; ফাতাওয়া হিন্দিয়া ১/৪১৯)

মোটকথা সে তার পছন্দের ও ইচ্ছার কথা জানাতে পারে। ব্যাস এতটুকু। তবে কাউকে বিবাহ করিয়ে দেওয়ার কথা জানাতে পারবে না। না স্পষ্টভাবে আর না ইশারায়। বিবাহ যে করিয়ে দিবে সে সম্পূর্ণ অনুমতি ব্যতীত নিজেই করিয়ে দিবে।
উল্লেখ্য যে, এই মাসআলা অত্যন্ত জটিল। তাই আপনার কাছাকাছি কোন বিজ্ঞ মুফতী সাহেবের নিকট থেকে সকল প্রকার দিকনির্দেশনা নিয়ে এগোতে থাকুন।

 828,345 total views,  860 views today