প্রশ্ন : আসসালামু আলাইকুম, আমার বাসা থেকে আমার মহল্লার মসজিদের দূরত্ব ৫ মিনিট। আবার আমার বাসার ঠিক সামনেই কলেজের একটা মসজিদ আছে। এখানে ফজর, যোহর, মাগরিব ও জুমার জামাআত হলেও আসর ও এশার জামাআত হয় না। মসজিদে একজন ইমাম সাহেব আছেন কিন্তু কোন মুআজ্জিন নেই। এখন আমার প্রশ্ন হলো আমি যদি মসজিদ আবাদের নিয়তে আছরে আযান দিয়ে এখানে বারান্দায় নামায পড়ি এটা আমার জন্য উত্তম হবে না আমার মহল্লার মসজিদে গিয়ে নামায পড়াটা উত্তম হবে? উল্লেখ্য যে, আযান দিলে কখনো জামাআত হবে আবার কখনো একাই নামায পড়তে হবে।

উত্তর :

ওয়া আলাইকুমুস সালাম
মসজিদটি সম্ভবত পাঞ্জেগানা হয়ে থাকবে ওয়াকফকৃত শরয়ী মসজিদ নয়। পাঞ্জেগানা হলে আপনি মহল্লার মসজিদে গিয়েই নামায আদায় করবেন। সেখানেই নামায পড়া আপনার জন্য উত্তম হবে। আর যদি (কলেজের মসজিদটি) ওয়াকফকৃত শরয়ী মসজিদ হয় তবে সেখানেই নামায পড়া উচিত। সেক্ষেত্রে এলাকাবাসীরও কর্তব্য উক্ত মসজিদ আবাদ রাখা। অন্যথায় সকলে গুনাহগার হবে।

 831,603 total views,  822 views today