প্রশ্ন : আসসালামু আলাইকুম। জনাব আমি আপনাকে স্ত্রী ছয় মাস বাপের বাড়ি না যাওয়ার নিষেধ করে তালাকের শর্ত দেয়ার প্রশ্ন করেছিলাম। এখন আমার জানার বিষয় আমি গত ০৫ ডিসেম্বর ২০১৮ তারিখে সকলের সামনে আমার স্ত্রীকে বলেছিলাম “আজকের থিকা ছয় মাসের মধ্যে (অথবা বলেছি আগে) যদি তুমি তোমার বাপের বাড়িতে যাও তবে দ্বিতীয় তালাক হবে”। এখন আমার স্ত্রী তাহলে কত তারিখ থেকে বাপের বাড়িতে যেতে পারবে? অনুগ্রহ করে একটু উত্তর দিবেন। কারণ আমার স্ত্রীর এখনো তার বাপের বাড়িতে যায়নি তাই যদি আমাদের হিসাবের ভুলে কারণে দুই একদিন আগে যায় তবে তার এই না যাওয়ার কষ্টটাই বৃথা হবে।

উত্তর :

ওয়া আলাইকুমুস সালাম
চলতি বছরের রমযানের ২৮ তারিখে (অর্থাৎ ২৮ ই রমযান, ১৪৪০ হিজরী) আপনার স্ত্রী বাপের বাড়িতে যেতে পারেন। ঐদিন বা তার পরে গেলে তার উপর আর কোন তালাক পতিত হবে না।
তবে আপনার এমনিভাবে কথায় কথায় তালাক দেওয়া থেকে বিরত থাকা কর্তব্য। এ থেকে নিজেকে নিয়ন্ত্রণ করতে না পারলে একসময় তা দুনিয়া ও আখেরাত উভয়টি বরবাদের কারন হতে পারে।
উপরোক্ত প্রশ্নটি মূলত একটি প্রশ্নের সম্পূরক প্রশ্ন। পাঠকের জন্য তা নিম্নে তুলে ধরা হল।
(প্রশ্ন : আমি আমার স্ত্রীকে প্রথমে রাগের মাথায় এক তালাক দিয়েছি এবং বলেছি যদি তুমি আগামী ৬ মাসের মধ্যে বাপের বাড়িতে যাও তবে ২ তালাক হবে। আমার প্রশ্ন এখন এই কথা ঘুরানোর কোন ব্যবস্থা আছে কি? আমার এবং আমার স্ত্রী এখন করণীয় কি?
উত্তর :প্রিয় দ্বীনী ভাই উত্তর দিতে কিছুটা বিলম্ব হল। এজন্য আন্তরিকভাবে দুঃখিত।
না, উক্ত কথা ঘুরানোর কোন পন্থা নেই। আপনার স্ত্রী উক্ত ছয় মাসের মধ্যে তার বাপের বাড়িতে গেলে উক্ত তালাক পতিত হবে।–ফাতাওয়া হিন্দিয়া ১/৪২০; তাবয়ীনুল হাকায়েক ৩/১০৯)

 822,411 total views,  408 views today