প্রশ্ন : আসসালামু আলাইকুম। একটা মেয়ের সাথে প্রেমের সম্পর্ক ছিল। গুনাহ থেকে বাঁচতে আমরা গোপনে বিয়ে করি। বিয়ের ক্ষেত্রে কুফু বজায় ছিল। পরবর্তীতে আমাদের বিচ্ছেদ ঘটে যায়। এবং মেয়ের অন্যত্র বিয়ে হয়ে গেছে। এখনো বিষয়টা গোপনই আছে।আমার জন্য বাসা থেকে মেয়ে দেখা হচ্ছে। প্রশ্ন হলো, আমি যদি মেয়ে পক্ষের কাছে পূর্বের বিয়ের ব্যাপারটা গোপন করি সেক্ষেত্রে আমার গুনাহ হবে?অথবা বিয়ের পূর্বে হবু স্ত্রীর কাছে পূর্বের প্রেমের বিষয়টা স্বীকার করি এবং শুধু বিয়ের ব্যাপারটা গোপন করি তাহলে কী প্রতারণা করা হবে?উল্লেখ্যঃ আমার পরিবারও বিয়ের বিষয়টা জানেনা। এখন যদি আমি সরল মনে স্বীকার করি তাহলে বিরাট ঝামেলা বেঁধে যাবে।একটি সুন্দর পরামর্শ দিয়ে বাধিত করবেন।

উত্তর :

ওয়া আলাইকুমুস সালাম
না, বিষয়টা গোপন রাখলে প্রতারণা বা গুনাহ হবে না। বরং আল্লাহ তাআলা যেহেতু বিষয়টি গোপন রেখেছেন তাই আপনারও বিষয়টি গোপন রাখা উচিত। তবে আপনি কখনো মিথ্যা বলবেন না। কখনো এ প্রসঙ্গ এলে আপনি মিথ্যা না বলে হেকমতের সাথে বিষয়টি এড়িয়ে যাবেন।–সহীহ মুসলিম, হাদীস নং ৭৬৭৬; সুনানে আবূ দাউদ, হাদীস নং ৪৪৭০

 823,560 total views,  431 views today