প্রশ্ন : মুসাফির কখন হয় ও মুসাফিরের হুকুম কি?

উত্তর :

কেউ যখন তার নিজ আবাদীর লোকালয় থেকে (কমপক্ষে ৪৮ মাইল সফরের নিয়তে) বের হয়ে যাবে তখন থেকে সে মুসাফির গন্য হবে। অর্থাৎ তার নিজ আবাদী থেকে বের হওয়ার পূর্বে সে মুসাফির গন্য হবে না।-ফাতাওয়া হিন্দিয়া ১/১৩৯,আসারুস সুনান পৃ: ২৬৩।

মুসাফিরের হুকুম হল, মুসাফির ৪ রাকাআত বিশিষ্ট ফরজ নামায ২ রাকাআত পড়বে। এটাকে কসর নামায বলে। মুসাফিরের জন্য নামাজ কসর করা ওয়াজিব।- রদ্দুল মুহতার ২/১২১-১২৩

শরঈ সফররত অবস্থায় সুবহে সাদিক হয়ে গেলে মুসাফিরের জন্য রোযা না রাখার সুযোগ রয়েছে। সে পরে কাযা করে নিবে। -হিদায়া ১/২২১

মুসাফির তিন দিন তিন রাত মোজার উপর মাসেহ করতে পরে।- হিদায়া ১/৫৭

আর নামাযের হুকুম হল মুসাফির যোহর,আসর ও এশায় ৪রাকাআত বিশিষ্ট ফরজ নামায ২ রাকাআত করে আদায় করবে। ফজর ও মাগরিব যথা নিয়মে ২ও ৩ রাকাআত করে পড়বে। অনুরূপভাবে বেতর নামাযও তিন রাকাআত পড়বে।-রদ্দুল মুহতার ২/১২১-১২৩,ফাতাওয়া হিন্দিয়া ১/১৩৯।

আপনি আরো বিস্তারিত জানতে চাইলে নিম্নোক্ত লিংক ভিজিট করতে পারেন।

http://muftihusain.com/article/%E0%A6%B8%E0%A6%AB%E0%A6%B0-%E0%A6%93-%E0%A6%95%E0%A6%B8%E0%A6%B0-%E0%A6%B8%E0%A6%82%E0%A6%95%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A6%BE%E0%A6%A8%E0%A7%8D%E0%A6%A4-%E0%A6%9C%E0%A6%B0%E0%A7%81%E0%A6%B0%E0%A7%80/

 831,036 total views,  255 views today