প্রশ্ন : আস্‌সালামু আলাইকুম,অনুগ্রহ করে আমাকে একটি মাসআ’লা দিয়ে সাহায্য করবেন। আমার বিয়ের পর থেকে আমার বাসায় অতিমাত্রায় অতিথী আসার কারণে আমি রাগের মাথায় বিরক্ত হয়ে আমার স্বামীর সাথে প্রচুর ঝগড়া করি। ঝগড়ার এক পর্যায়ে আমি বাসা থেকে বের হয়ে উকিলের কাছে যাই। আমার স্বামীও আমার সাথে সাথে যায়। সে আমার সাথে বের হয়েছিল শুধু মাত্র আমাকে বুঝিয়ে বাসায় ফিরিয়ে আনার জন্য। কিন্তু, আমি তার কোন কথা না শুনে রাগের মাথায় গত ১৯/০৪/১৭ইং তারিখে উকিলের কাছে যাই। উকিলের সাথে তালাকের বিষয়ে ক্থা বলি। উকিল নিজ দ্বায়িত্বে হুজুর নিয়ে আসে। কাবিনের ১৮ নং পরিচ্ছেদ এর ক্ষমতাবলে তালাকে তফউইজ গ্রহণ করতঃ বৈবাহিক সম্পর্ক ছিন্ন করি। এই সময় আমার স্বামী পাশেই ছিল। কিন্তু সে এটা মেনে নেয়নি। উল্লেখ্য, কাবিনের ১৮ নং এ, শর্ত মোতাবেক স্বামী, স্ত্রীকে তালাক প্রদানে ক্ষমতা দিয়েছে। কিন্তু, এটা আমরা দুইজনের একজন ও জানতাম না। উক্ত ক্ষমতার কথা তালাকের ২ দিন পর জানতে পারি।এখন আমাদের তালাক কি হয়ে গেছে? নাকি হয় নাই? এখন আমরা দুইজনই একত্রে থাকার জন্য খুবই আগ্রহী। এখন কি আমি আমার স্বামীর কাছে ফিরে যেতে পারব? দয়া করে বিস্তারিত জানালে খুবই কৃতজ্ঞ থাকব। বিঃদ্রঃ- কাবিননামা এবং উকিল নোটিশ সংযুক্ত করা হল। جَزَاكَ اللهُ خَيْرًا । আস্‌সালামু আলাইকুম।

উত্তর :

18110641_1892067877727751_1130415845_n18109547_1892067824394423_72777618_n-(2)

তানকীহ (প্রশ্ন স্পষ্টকরন)-আপনার স্বামী আপনাকে শরীআত মোতাবেক পরিচালনা করেছিলেন কি?

তানকীহের উত্তরঃ না, পরিপূর্ণ শরীআত মোতাবেক পরিচালনা করেননি।

উত্তরঃ প্রশ্ন এবং সংযুক্ত ডকুমেন্টের বর্ণনা অনুযায়ী আপনার উপর এক তালাকে বায়েন পতিত হয়েছে। এবং এর দ্বারা আপনাদের বৈবাহিক সম্পর্ক বিচ্ছিন্ন হয়ে গিয়েছে। এখন আপনারা পুনরায় সংসার করতে চাইলে নতুনভাবে মহর ধার্য্য করে দুজন সাক্ষীর উপস্থিতিতে ঈজাব কবূলের দ্বারা বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হতে পারেন। তবে আপনি ভবিষ্যতে আর দুটি তালাকের মালিক থাকবেন।–রদ্দুল মুহতার ৩/৩২৯; ফাতাওয়া হিন্দিয়া ৬/২৬১,১/৩৮৭; বাদায়েউস সানায়ে ৩/৩৫৮,৩৫৯; তাবয়ীনুল হাকায়েক ৩/৮৫,৮৬।

 830,588 total views,  955 views today